কানের পর্দা ফেটে গেলে কিভাবে বুঝবেন _কানের পর্দা ফেটে গেলে কি করবেন?

আসসালামুয়ালাইকুম আজকে আমরা এই আর্টিকেলে পর্ব কানের পর্দা ফেটে গেলে বা পদ্মার কোন সমস্যা হলে কিভাবে বুঝব। বিভিন্ন কারণে কানের পর্দা ফেটে যেতে পারে। যেমন বাতাসের চাপে .
কানের পর্দা ফেটে গেলে করনীয় কি। প্রিয় পাঠক আজকে আমরা এই অ্যাপটি পড়বো কানের পর্দা ফেটে গেলে করণীয় কি আপনারা এয়ার টিকেটটি মনোযোগ দিয়ে পড়ুন।









পোস্টের সূচিপত্রঃ
  • বিভিন্ন কারণে কানের পর্দা ফেটে যেতে  পারে তা কি কিঃ
  • চিকিৎসা করার নিয়ম বা ১১টি সমূহঃ
  • কানে শোঁ শোঁ শব্দ হলে কি কি করবেঃ
  • কেন হয় এই শোঁ শোঁ শব্দ  তা ৮টি কারণ সমূহঃ
  • প্রতিকার চিকিৎসা ৬টি কার‌ণ সমূহঃ
  • শেষ কথাঃ




বিভিন্ন কারণে কানের পর্দা ফেটে যেতে  পারে তা কি কিঃ

  1. কোন কিছু দিয়ে কান খোঁচালে
  2. কোন কিছু ঢুকলে তা অদক্ষ হাত বের করার চেষ্টা করলে
  3. হঠাৎ বাতাসে চাপ জনিত কারণে যেমন কানে থাপর থাপ্পড় দিলে বা কোন বস্তু ঘটলে আঘাত পেলে
  4. হঠাৎ পানির চাপ যেমন পানির নিচে সাঁতার কাটলে ওয়াটার পোলো” ডাইভিং অক্স মাথায় আঘাত বা দুর্ঘটনা জড়িত কারণে   


যেমন—বাতাসের চাপের তারতম্যতরল পদার্থের চাপ কঠিন বস্তুর আঘাত।বায়ুচাপের কারণে কানের পর্দা ছিঁড়ে যাওয়ার পেছনে থাকতে পারে—কানের ওপরে ঘুষি বা থাপড়ের আঘাত বোমা বা পটকার বিস্ফোরণ’ অনেক সময় মানুষ অস্থির করে যার কারণে কানের পর্দায় চাপ খেতে পারে,। এসব ক্ষেত্রে পর্দার সামনের এবং নিচের দিকের অংশে ক্ষত সৃষ্টি হয়।

তরলজনিত পারফোরেশনের কারণ হতে পারে কি কিঃ


সিরিঞ্জিং

ক্যালরিক টেস্টকঠিন বস্তুর কারণে পর্দা ছিন্ন হতে পারে, যদি বাইরে থেকে কোনো কিছু কানে ঢুকে যায় অথবা সেই ঢুকে পড়া বস্তুকে যদি অপসারণের প্রয়াস না নেওয়া হয়।






চিকিৎসা করার নিয়ম বা ১১টি সমূহঃ


  1. কানে কোন ইনফেকশন না হওয়ার জন্য অ্যান্টিবায়োরিক খেতে হবে
  2. ব্যাথা থাকলে প্যারাসিটামল খেতে হবে
  3. কানের কোন পানি দেওয়া যাবে না
  4. কান খোঁচানো যাবে না
  5. কানে কোন ড্রপ দেওয়া যাবে না
  6. সাঁতার কাটা যাবে না
  7. দুই সপ্তাহ পর রক্ত জমা থাকলে তা বের করতে হবে নাক কান গলা বিশেষজ্ঞ দিয়ে
  8. রোগীকে আশ্চর্য করতে হবে
  9. সাধারণত উপরিক্ত চিকিৎসার রোগী ভালো হয়ে যায়
  10. . যদি রোগী দেরিতে চিকিৎসার জন্য কাল থেকে পোস্ট করা বা ইনফেকশন নিয়ে আসে তখন তা কানের হিসেবে চিকিৎসা করতে হবে
  11. সাধারণত কানের পর্দা ছিড়ে গেলে যে কোন ফার্মেসি থেকে কানের ড্রপ নিয়ে অনেকেই তা ব্যবহার করে. যা একেবারে উচিত নয়। এক্ষেত্রে কানে কিছু ব্যবহার করা যাবে না এবং নিকষ্ট হাসপাতালে গিয়ে চিকিৎসা করতে হবে বা নাক কান গলা বিশেষজ্ঞের পরামর্শ নিতে হবে


আরো কিছু  পড়ুনঃ


বেশির ভাগ ক্ষেত্রে কানের পর্দা এমনি এমনি জোড়া লেগে যায়। চিকিৎসার তেমন কোনো কিছু প্রয়োজন হয় না।চিকিৎসার প্রয়োজন হয়, যদি:টিস্যু নষ্ট হয়ে থাকে পরবর্তী সময়ে সংক্রমণ সৃষ্টি হয়। অপারেশনের মাধ্যমে কানের পর্দা জোড়া লাগানো যায়। পারফোরেশন ছাড়া কানে আঘাত থেকে সৃষ্টি হতে পারে. তাই আপনার ভালোভাবে কান দেখে ভালোভাবে চিকিৎসা করার চিকিৎসা পরামর্শ দিতে পারে।

হাড়ের বিচ্যুতি অন্তঃকর্ণের ক্ষতিশোঁ শোঁ শব্দ ফেসিয়াল নার্ভের ক্ষতি। চিকিৎসককে নিজে থেকেও ছুরি চালাতে হয় কানের পর্দায়, যখন তিনি মাইরিংগোটমি অপারেশন করেন। মধ্যকর্ণের প্রদাহ এবং পানি জমে গিয়ে শ্রুতি-স্বল্পতা প্রতিরোধের জন্য ওই চিকিৎসা তো করাই হয়। সেই ছিদ্রকে নির্দিষ্ট সময়কাল সচল রাখার জন্য গ্রমেট নামের ছোট বায়ু-বোতাম বসিয়ে দেন অটোলজিস্টরা। কিন্তু যেনতেন কারণে কানের পর্দা ফেটে গেলে আমরা পরিতাপ না করে পারি না।

পর্দার ক্ষত ১০ শতাংশ ক্ষেত্রে জোড়া লাগে না এবং আর পাঁচজন কানপাকা রোগীর মতো ভাগ্য বরণ করতে হয়।সামাজিক অস্থিরতার কারণে, অসচেতনতার কারণে শারীরিক শাস্তি দেওয়ার যে প্রবণতা আমাদের চারপাশে, পরিবারে ও সমাজে, এ কারণে কানের পর্দা ফেটে যাওয়ার সংখ্যা নেহাত কম নয়।







কানে শোঁ শোঁ শব্দ হলে কি কি করবেঃ


অনেক সময় কানে শো শো  শব্দ হয়ে থাকে। যে কোন বয়সে এমন সমস্যা দেখা দিতে পারে। শব্দ হঠাৎ করে আসে আবার অনেক সময় চলেও যায়। কারো কারো ক্ষেত্রে এটি স্থায়ী হয়ে যায় যা বেশি যন্ত্রায়ক।
যাই হোক সময় মত সঠিক চিকিৎসা বা চিকিৎসকের পরামর্শ নিলে এমন বিরক্তিকরন অবস্থা থেকে মুক্তি পাওয়া যায়। কানে শো শো শব্দ হলে আপনার ভালোভাবে ভালো একজন ডাক্তার দেখে ভালোভাবে চিকিৎসা করার পরামর্শ নিবেন। তাহলে আশা করি কানে আর কোন সমস্যা হবে না।





কেন হয় এই শোঁ শোঁ শব্দ  তা ৮টি কারণ সমূহঃ


কারণগুলোকে সাধারণত দুই ভাগে ভাগ করা যায়। খানের সমস্যার কারণে ও অন্যান্য শারীরিক সমস্যার কারণেও কানে শব্দ হতে পারে। কানের সমস্যা গুলো নিচে দেওয়া হল?

  1. খানে ময়লা জমলে
  2. বহিক্ষনের কোন বস্ত্র আটকে গেলে
  3. মধ্যখানে কফ জমে গেলে
  4. কানের পর্দা ফেটে গেলে
  5. কানের পর্দাহের সৃষ্টি হলে
  6. মধ্যঃকণের অস্থির গুলো নড়াচড়া না করলে
  7. অন্তঃ কর্ণের চাপ বৃদ্ধি পেলে
  8. শ্রাবণ-সংক্রান্ত স্নাযু ক্ষতিগ্রস্ত হলে কানের জন্য ক্ষতিকর ওষুধ দীর্ঘদিন খেলে

অন্যান্য সাধারণ সমস্যা?

  • ১৬ বছরের বেশি বয়স হলে
  • শরীরের রক্তশূন্য দেখা দিলে
  • দীর্ঘদিন উচ্চ রক্তচাপ থাকলে
  • মানুষের অস্থিরতার কারণে হতে পারে
  • কিছু কিছু ভাইরাস জনিত সংক্রমণের কারণেও হতে পারে লক্ষণ
  • কানে কম শোনা
  • মাথা ঘোরানো
  • কান বন্ধ লাগা বা ইত্যাদি 
তা লক্ষণঃ
  • কানে কম শোনা
  • মাথা ঘুরানো
  • কান বন্ধ লাগা বাই ইত্যাদি



প্রতিকার চিকিৎসা ৬টি কার‌ণ সমূহঃ


  1. যে কোন কিছু দিয়ে কানের ময়লা পরিষ্কার করা যাবে না।
  2. প্রদাহ ও পর্দা ফেটে গেলে র্সঠিক সময় সঠিক চিকিৎসা করতে হবে।
  3. অনেক সময় শম্য চিকিৎসার প্রয়োজন হতে পারে।
  4. স্নায়ু সমস্যায় শ্রাবণ যন্ত্র বা টেনিটাস মাসকার ব্যবহার করলে শো শো শব্দ ভালো হয়ে যাবে।
  5. কিছু কিছু ওষুধ প্রয়োগেও কানের শো শো শব্দ কমে যায়।
  6. রিলাক্সশেন থেরাপি বা যোগ ব্যায়ামের মাধ্যমে শো শো শব্দ কমে ।



শেষ কথাঃ

প্রিয় পাঠক আজকে আমরা এই আর্টিকেলে লিখেছি কানের পর্দা ফেটে গেলে কিভাবে বুঝবেন কানের পর্দা ফেটে গেলে কি করবেন। আমাদের এই আর্টিকেল যদি আপনাদের ভালো লাগে তাহলে আমাদের পাশে থাকবেন।  ধন্যবাদ
Next Post Previous Post
No Comment
Add Comment
comment url